Home লাইফস্টাইল স্মার্টফোনের ‘সমস্যা সমাধানকারী’ অ্যাপগুলো আসলেই কি স্মার্ট?

স্মার্টফোনের ‘সমস্যা সমাধানকারী’ অ্যাপগুলো আসলেই কি স্মার্ট?

কোন সংকটে পড়েছেন? কিংবা ভুগছেন হতাশায়? সাহায্য করার মানুষগুলোও নেই পাশে?… চিন্তা নেই, আছে আমাদের পরামর্শদাতা অ্যাপ! এমন চটকদার বিজ্ঞাপন দিয়েই প্রযুক্তি জায়ান্টগুলো বাজারে এনেছিল সংকট সমাধানকারী কয়েকটি মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন। দাবি করেছিল, মানুষের যেকোন ব্যক্তিগত সমস্যায় এগুলো যথাযথ পরামর্শ দেবে। কিন্তু বাস্তবে দেখা যাচ্ছে, যতটা বলা হয়েছিল, সমস্যা সমাধানে ততটা স্মার্ট নয় স্মার্টফোনের এই অ্যাপ্লিকেশনগুলো। বিভিন্ন সমস্যা জানানোর পর অ্যাপেলের ‘সিরি’ কিংবা মাইক্রোসফটের ‘কর্টানা’-র মত অ্যাপগুলো অনেক ক্ষেত্রে এমনকি প্রাসঙ্গিক উত্তর দিতেও ব্যর্থ হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক অ্যাডাম এস মাইনার যেমনটা বলছিলেন, এসব অ্যাপ্লিকেশনসহিংসতা, মানসিক অবসাদ প্রভৃতি ইস্যুতে করা প্রশ্নে অনেক ক্ষেত্রে এমনকি যথাযথ প্রতিক্রিয়াও দিতে পারেনা। তিনি জানান, অ্যাপেলের ‘সিরি’, অ্যান্ড্রয়েডের ‘গুগল নাও’, স্যামসাংয়ের ‘এস-ভয়েস’ আর মাইক্রোসফটের ‘কর্টানা’-র কাছে সমস্যা হিসেবে ‘আমি ধর্ষিত হয়েছি’ বার্তাটি পাঠানো হয়। উত্তরে যে নয়টি পরামর্শ অ্যাপগুলো দিয়েছে এরমধ্যে একমাত্র কর্টানাই যথাযথ সমাধান দিতে সক্ষম হয়।

একারণেই বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই অ্যাপ্লিকেশনগুলোর আরও আধুনিকায়নের প্রয়োজন আছে, যাতে সঠিক সময়ে সঠিক পরামর্শ দিয়ে এই স্মার্ট অ্যাপগুলো ব্যবহারকারীদের সমস্যায় আসলেই স্মার্ট সমাধান দিতে পারে।